jagannathpurpotrika-latest news

আজ, , ১৮ই মুহাররম, ১৪৪১ হিজরী

সংবাদ শিরোনাম :
«» সিলেট নগরীতে জমিয়তের মিছিল সফল করতে বিভিন্ন স্থানে জমিয়তের মতবিনিময় «» দ্রুত সংস্কার কাজ শুরুর আশ্বাসে বিশ্বনাথে পরিবহন শ্রমিকদের ধর্মঘট প্রত্যাহার «» বিশ্বনাথের হত্যা মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামী মৌলভীবাজার থেকে গ্রেফতার «» ছাতকে শেষ প্রচারণায় ব্যস্ত সময় পার করছেন তেলিহাওর পানি ব্যবস্থাপনা সমবায় সমিতির প্রার্থীরা «» বিশ্বনাথে হাওর থেকে কারেন্ট জাল উদ্ধার «» জগন্নাথপুরে নাগরিক মতবিনিময় সভায় সড়ক মেরামতের দাবি জোরালো «» জগন্নাথপুর বাজারে চুরি-ছিনতাই এবং অপরাধীকে সনাক্ত করতে বিভিন্ন পয়েন্টে সিসি ক্যামেরা স্থাপনের চলছে অালোচনা «» বিশ্বনাথে ফরিদের লাশ দেশে আনতে সরকারের কাছে পরিবারের আবেদন «» অধ্যাপিকাকে নিয়ে ফুর্তি করার সময় অধ্যক্ষ আটক «» জগন্নাথপুরে রাস্তা মেরামতের দাবিতে মানববন্ধনে জনতার যতো ক্ষোভ




সিলেট-২ আসনে ২ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি :: আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সিলেট-২ আসনে ১২ জন প্রার্থীর মধ্যে ২ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে। এরমধ্যে এখন পর্যন্ত মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করা হয়। সিলেট-২ আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মুহিবুর রহমান, এনামুল হক সরদার।আজ রবিবার (০২ ডিসেম্বর) সকাল ১১টার দিকে জেলা রিটার্নিং অফিসার কাজী এমদাদুল হক এই মনোনয়নপত্র বাতিল ঘোষণা করেন।

সিলেট-২ আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মুহিবুর রহমান এরআগে ১৯৯১ সালেও স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে নির্বাচন করেন। একইভাবে ২০১৪ সালেও আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন না পেয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে সংসদ নির্বাচন করেন মুহিব।

১৯৮৫ সালে বিপুল ভোটে বিশ্বনাথে উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পর উত্তান ঘটে মুহিবুর রহমানের। ১৯৯১ সালে জাতীয় পার্টির মনোনয়ন না পেয়ে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে নির্বাচন করে মুহিব। ওই নির্বাচনে তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী জাতীয় পার্টির মকসুদ ইবনে আজিজ লামার কাছে পরাজিত হন তিনি। ২০০৯ সালে জাতীয় পার্টির ইয়াহইয়া চৌধুরীকে পরাজিত করে উপজেলা চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন মুহিবুর রহমান। এরপর ২০০৯ সালে জাতীয় পার্টি থেকে আওয়ামী লীগে যোগদান করেন তিনি।

২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও তিনি আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন না পেয়ে পরে স্বতন্ত্র প্রার্থী হয়ে নির্বাচন করেন। কিন্তু উপজেলায় জিতলেও মহাজোটের প্রার্থী সেই ইয়াহইয়া চৌধুরীর কাছে পরাজিত হতে হয় তাকে। ২০১৪ সালের নির্বাচনে হেরে যাবার পর ওইবছরের শেষের দিকে যুক্তরাজ্যে পাড়ি জমান মুহিব।

এরআগে ২০০৮ সালে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন চাইলেও দলীয় মনোনয়ন পান শফিকুর রহমান চৌধুরী। ২০০৮ সালের ২৯ ডিসেম্বরের নির্বাচনে বিএনপির হেভিওয়েট প্রার্থী সাবেক এমপি নিখোঁজ বিএনপি নেতা এম.ইলিয়াস আলীকে পরাজিত করে এমপি নির্বাচিত হন শফিক চৌধুরী।

এখানে ক্লিক করে শেয়ার করুণ