jagannathpurpotrika-latest news

আজ, , ১২ই রজব, ১৪৪০ হিজরী

সংবাদ শিরোনাম :




বিজয় দিবস ও ইসলাম- অধ্যক্ষ সৈয়দ রেজওয়ান অাহমদ

মানবজাতির জন্য আজাদী অান্দোলন বিশেষ একটি নেয়ামত। আর বিজয় হচ্ছে আজাদী বা স্বাধীনতা আন্দোলনের প্রাণ। বিজয় বা স্বাধীনতা যে কত বড় আকারের নেয়ামত, যারা এই নেয়ামত থেকে বঞ্চিত, তারাই কেবল এর প্রকৃত ভুক্তভোগী।

 

‘কি যাতনা বিষে বুঝিবে সে কিসে কভু আশীবিষে দংশেনি যারে’।

 

বাঙালি জাতি হিসেবে আমরাও গর্বিত। স্বাধীনতার ইতিহাস আছে আমাদের, আছে একটি বিজয় দিবস। ১৬ ডিসেম্বর এমনই একটি বিশেষ দিবস, যা বাঙালি জাতির জন্য গৌরবের। দীর্ঘ নয় মাসের রক্তক্ষয়ী সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধ ছিল এ জাতির এক কঠিন অগ্নিপরীক্ষা। পরীক্ষায় বাঙালী জাতি পাশ করেছে ছিনিয়ে এনেছে বিজয়।

 

তাই বলা যায়, বিজয়ের জন্য ‘আল্লাহর সাহায্য একান্ত প্রয়োজন তাঁর ছাড়া কোন বিজয়ই সম্ভব নয়। এ কারণেই বলা হয়েছে, মুসলিম জাতি তোমরা তোমাদের রবের গুণগান, প্রশংসা ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করো, তাঁর কাছে ভুলত্রুটির জন্য অনুশোচনা ও ক্ষমা প্রার্থনা করো। তিনি অত্যন্ত দয়াবান, ক্ষমাশীল ও করুণাময় ( অাল কুরাআন)’।

 

 

বড়ই পরিতাপের বিষয়, বাঙালীরা এক সাগর রক্ত দিয়ে যুদ্ধ করেছে, অগ্নী-পরীক্ষায় আগুনের পাহাড় ডিঙিয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে এবং অবশেষে বিজয় অর্জন করতে সম্ভব হলো; কিন্তু তার পূর্ণ সুফল ভোগ করতে কি সম্ভব হয়েছে? আল্লাহর রহমতের যে চাদর আমাদের মাথার ওপর ছিল, নিজেদের কর্মফলের জন্য দিন দিন যেন সে রহমত থেকে বঞ্চিত হচ্ছি। নিঃস্ব হচ্ছি আমরা বাঙালি জাতি। বনি ইসরাইল যেমন বিজয়লাভ করেও সামেরির কুমন্ত্রণায় বিপথগামী হয়েছিল, তেমনি আমরাও শয়তান ও শয়তানি শত্রুদের আশ্রয়-প্রশ্রয় নিয়ে বিঘ্নিত করছি বিজয়ের কাঙ্কিত লক্ষ্যকে।

 

 

ইসলামের ইতিহাস বিজয়ের চেতনায় সমৃদ্ধ। ইসলামের নবী হজরত মুহাম্মাদ (সা.) কখনোই ব্যক্তিগত চাহিদা বা মনের আক্রোশ মেটানোর চেতনায় যুদ্ধ করেননি। তাঁর সব যুদ্ধ ছিল মজলুম মানবতার মুক্তিলাভের যুদ্ধ এবং মক্কা বিজয় ছিল তাঁর জীবনের শ্রেষ্ঠ বিজয় দিবস।

 

 

একাত্তরের স্বাধীনতা আন্দোলন এদেশের মজলুম মানুষের সাথে পাকিস্থান হানাদার বাহিনীর বর্বর অামানবিক অত্যাচার ও অন্যায়ের বিরুদ্ধে মানবতাবাদীদের দেশ রক্ষার জন্য এবং মজলুমের পক্ষে কথা বলাই ছিল সংগ্রাম ও অান্দোলনের প্রধান লক্ষ্য।

 

 

তাই মজলুম মানবতার পক্ষে এ দেশের অালেম সমাজের প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষ সহযোগিতা এবং স্বাধীনতা সংগ্রামে উলামায়ে কেরামের ভূমিকা অামাদের পূর্ব-সূরীদের সেই চেতনা ও আদর্শের সাথে মিল পাওয়া যায়। স্বাধীনতা সংগ্রামের সঠিক ইতিহাস ও তথ্য বের করা গেলে অামরা দেখতে পাবো- স্বাধীনতা সংগ্রামের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত এ দেশের অালেম সমাজের প্রত্যক্ষ এবং পরোক্ষ ভূমিকা অনস্মীকার্য।

 

 

অথচ স্বাধীনতা সংগ্রামের যেসব ইতিহাস অামাদের দেশের ইতিহাস লিখকদের মাধ্যমে যা প্রকাশ পেয়েছে, অালেম সমাজের ভূমিকা এবং সংশ্লিষ্টতাকে কোথাও খুঁজে পাওয়া যায়নি। এর কারণ কি? অামরা কী কোন দিন এই হীন মন্যতার কাররণ খুঁজেছি।

 

 

তাই অাসুন! অামাদের দেশ রক্ষার সঠিক ইতিহাস এবং দেশের স্বাধীনতা সংগ্রামে এ দেশের অালেম সমাজের ভূমিকা কেমন ছিল তা সমাজের কাছে উপস্থাপন করি এবং অাজকের এই দিনে যাদের অক্লান্ত পরিশ্রমের বিনিময়ে অামরা একটা স্বাধীন দেশ পেয়েছি সে ইতিহাস নিয়ে অালোচনা করি। তাহলে সমাজের সামনে প্রকাশ পাবে দেশ রক্ষার সঠিক ইতিহাস।

 

 

লেখক: অধ্যক্ষ সৈয়দ রেজওয়ান অাহমদ, জগন্নাথপুর, সুনামগঞ্জ, বাংলাদেশ।

এখানে ক্লিক করে শেয়ার করুণ