jagannathpurpotrika-latest news

আজ, , ১২ই রজব, ১৪৪০ হিজরী

সংবাদ শিরোনাম :




কিশোরীকে মদপান করিয়ে ধর্ষণ

ডেস্ক রিপোর্ট :: এক কিশোরীকে মদপান করিয়ে ধর্ষণের পর হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে ভাঙ্গা উপজেলায়। কিশোরী দোলন আক্তারকে মদপান (অ্যালকোহল) করিয়ে তিন যুবক পালাক্রমে ধর্ষণ করে।

এতে দোলন (১৫) অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে প্রথমে ভাঙ্গা এবং পরে ফরিদপুর হাসপাতালে নেয়া হয়। বুধবার বিকালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়।

এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত সন্দেহে দোলনের বান্ধবী কনা আক্তারকে পুলিশ আটক করেছে। দোলনের মামা কমিশনার ওমর আলী জানান, সোমবার বিকালে দোলন তার বান্ধবী কনাকে নিয়ে গ্রাম্য মেলা দেখতে যায়।

সেখানে কনার সহায়তায় তার আত্মীয় রাকিবুল, কাইয়ুম ও আবদুর রহিম সন্ধ্যার পর কৌশলে দোলনকে মদপান করিয়ে অচেতন করে ধর্ষণ করে। এরপর অচেতন অবস্থায় ওই রাতে তাকে উদ্ধার করে ভাঙ্গা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

তার অবস্থার অবনতি হলে বুধবার সকালে তাকে ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দোলন মারা যায়। অ্যালকোহলে দোলনের মৃত্যু হয়েছে বলে ফরিদপুর হাসপাতালের চিকিৎসকরা জানিয়েছে।

ভাঙ্গা থানার ওসি কাজী সাইদুর রহমান জানান, ঘটনাটি জানার পর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য কনাকে আটক করা হয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন হাতে পেলে বিষয়টি পরিষ্কার হবে।

বুধবার রাতে ভাঙ্গা থানায় ধর্ষণ ও হত্যার অভিযোগে মামলা করা হয়েছে। পৌর এলাকার হাজরাহাটি গ্রামের লাভলু খয়রাতির কন্যা দোলন। ময়নাতদন্তের পর বুধবার রাতে তার লাশ দাফন করা হয়।

এখানে ক্লিক করে শেয়ার করুণ