jagannathpurpotrika-latest news

আজ, , ২২শে সফর, ১৪৪১ হিজরী

সংবাদ শিরোনাম :
«» বাংলাদেশে এখন বিশ্বের আধুনিক আইটি সিস্টেম রয়েছে: জয় «» সিলেটে নবীনদের শুভাগমনে মদন মোহন কলেজে ছাত্রলীগের মিছিল «» আত্মীয় বা দলের নেতা কেউ ছাড় পাবে না: শেখ হাসিনা «» যুবলীগ থেকে ওমর ফারুক আউট, তাপস ইন «» জগন্নাথপুরে ঘন্টাব্যাপি সংঘর্ষে উভয় পক্ষে আহত ১৫ «» সৈয়দপুরে ব্যারিস্টার এনামুল কবির ইমনের জন্মদিন পালিত হয়েছে «» দোয়ারায় ব্যারিস্টার এনামুল কবির ইমনের জন্মদিন পালিত হয়েছে «» সিলেটে ছাত্র জমিয়তের বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত «» জগন্নাথপুরে নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচার) আলোচনা সভা ও লিফলেট বিতরণ «» আল্লাহ ও রাসুল (স.)কে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে সাধারণ মুসুল্লিদের সাথে পুলিশের সংঘর্ষে নিহত ১, শতাধিক আহত




জামায়াতের সংস্কারপন্থীদের নতুন রাজনৈতিক দল গঠনে সিদ্ধান্ত গ্রহণ

ডেস্ক রিপোর্ট :: নতুন রাজনৈতিক দল গঠন সম্পর্কে জামায়াতের সংস্কারপন্থীদের নেতা মজিবুর রহমান মঞ্জু বলেছেন, ‘আমরা প্রচলিত কোনো রাজনৈতিক দলের বা অনুসারী কিংবা অনুরক্ত নই। এটা সম্পূর্ণ স্বাধীন উদ্যোগ, স্বতন্ত্র ধারা। জামায়াতে ইসলামীসহ বিদ্যমান কোনো রাজনৈতিক দলের সাথে আমাদের কোনো সম্পর্ক নেই।’

আজ শনিবার রাজধানীর একটি হোটেলে নতুন রাজনীতিক সিদ্ধান্ত গ্রহণ নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে করে মজিবুর রহমান মঞ্জু এসব কথা বলেন।

এ সময় মঞ্জু বলেন, ‘যারা আমাদের সাথে সরাসরি যুক্ত হবেন কিংবা চিন্তা ও কর্মপন্থায় ঐক্যমত পোষণ করবেন, তাদের সকলকে নিয়ে এই উদ্যোগের মধ্য দিয়ে আমরা নতুন একটি রাজনৈতিক দল গড়ে তুলব, ইনশাআল্লাহ।’

সংবাদ সম্মেলনে জামায়াতের সংস্কারপন্থীদের এই নেতা বলেন, ‘বাংলাদেশ আজ অধিকারহীন, অনিরাপদ ও স্বৈরতান্ত্রিক রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে। গুম, খুন, গ্রেপ্তার, নির্যাতন, বিনা বিচারে কারাভোগ কিংবা নিস্তব্ধ কণ্ঠের চাপা আর্তনাদ নিয়ে বেঁচে থাকার জনপদের নাম বাংলাদেশ।’

মঞ্জু বলেন, ‘স্বাধীনতার পর থেকে সব সরকারই জনগণের প্রকৃত রাজনৈতিক ক্ষমতায়নের পথকে রুদ্ধ করেছে। বাংলাদেশের মানুষ কখনোই অভিষ্ট গণতন্ত্রের স্বাদ পায়নি। এক পক্ষের ব্যর্থতাতে পুঁজি করে অন্যপক্ষ ক্ষমতায় এসেছে। ’

জামায়াতের সংস্কারপন্থী এই নেতা বলেন, ‘সামজিক বৈষম্য ও দুঃশাসনের বিরদ্ধে লড়াই করে আমরা স্বাধীনতা ফিরে পাই। নতুন রাষ্ট্রের আদর্শিক ভিত্তি ও সামষ্টিক অভিপ্রায় হিসেবে মুক্তিযুদ্ধের ঘোষণাপত্রে সাম্য, মানবিক মর্যাদা ও সামাজিক সুবিচার এই তিনটি ‍মূলনীতি গ্রহণ করা হয়েছিল।  ঘোষিত এই নীতির প্রতি সমর্থন, বিশ্বাস ও বাস্তবায়নে অঙ্গিকারবদ্ধ হয়ে জনগণ মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেছিল। স্বাধীন রাষ্ট্র হিসেবে বাংলাদেশের জন্মের পর কখনোই এই প্রতিশ্রুতির বাস্তবায়ন ঘটেনি। আজ পর্যন্ত যারা বাংলাদেশ শাসন করেছেন তাদের প্রত্যেকেই এই মৌলিক প্রতিশ্রুতি রক্ষা করতে ব্যর্থ হয়েছেন।’

এখানে ক্লিক করে শেয়ার করুণ