jagannathpurpotrika-latest news

আজ, , ২৩শে জমাদিউল-আউয়াল, ১৪৪১ হিজরী

সংবাদ শিরোনাম :
«» ছাতকে বাংলা সাহিত্যে বঙ্গবন্ধু শীর্ষক আলোচনা সভা ও লেখা পাঠের আসর অনুষ্ঠিত «» জকিগঞ্জে অগ্নিকান্ডে ২০টি দোকান পুড়ে ছাই: প্রায় আড়াই কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি «» সিলেটে নিখোঁজের ৪৮ বছর পর বাবাকে ফিরে পেলেন সন্তানরা! «» দোয়ারায় সৈনিকলীগের আনন্দ শোভাযাত্রা ও আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত «» জগন্নাথপুরে মেয়র আব্দুল মনাফের জানাজায় কয়েক হাজার মানুষ: শ্রদ্ধা, ভালোবাসা ও চোঁখের অশ্রুতে শেষ বিদায় «» ছাতকে ৫ শতাধিক শীতার্ত মানুষের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ «» ছাতকে ৩লক্ষ টাকা ব্যয়ে বসতঘর বরাদ্দ ও সরকারি ৪০হাজার টাকার চেক পেয়েছে অনাথ শিশুরা «» গোলাপগঞ্জে আরিফ ইকবাল স্মৃতি মেধা বৃত্তি পরীক্ষার পুরস্কার বিতরণ «» বালাগঞ্জে প্রবাসীদের অর্থায়নে সড়ক পাকাকরণ ও মাটি ভরাট কাজের উদ্বোধন «» দক্ষিণ সুনামগঞ্জে সার্বিক গ্রাম উন্নয়ন কর্মসূচির যৌথ সভা অনুষ্ঠিত




জগন্নাথপুরে সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে পানিবন্দি অসহায় মানুষের কাছ থেকে কিস্তি আদায় করছে এনজিও সংস্থা আশা

মো.শাহজাহান মিয়া :: সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে বন্যায় কবলিত অসহায় পানিবন্দি মানুষের কাছ থেকে কিস্তির টাকা আদায় করছেন এনজিও সংস্থা আশা’র মাঠকর্মীরা। মাঠকর্মীদের চাপের মুখে ঘরের বিভিন্ন জিনিসপত্র বিক্রি করে ও অন্যের কাছ থেকে সুদে টাকা এনে কিস্তি দিতে বাধ্য হচ্ছেন ঋণ গ্রহিতা নারীরা। এ নিয়ে সচেতন মহলে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে।
১৮ জুলাই বৃহস্পতিবার সরজমিনে দেখা যায়, জগন্নাথপুর পৌর শহরের ইকড়ছই (নতুনপাড়া) গ্রামের নারীদের কাছ থেকে কিস্তির টাকা আদায় করছেন এনজিও সংস্থা আশা’র মাঠকর্মী গিয়াস উদ্দিন। এ সময় হাটু পানি মাড়িয়ে সাপ্তাহিক কিস্তির টাকা পরিশোধ করতে মাঠকর্মীর কাছে ছুটে আসেন পানিবন্দি অসহায় নারীরা। তারা কিস্তির টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করে মাঠকর্মীর কাছে অনেক অনুনয়-বিনয় করলেও কাজ হয়নি। অবশেষে মাঠকর্মীর চাপের মুখে ঘরের জিনিসপত্র বিক্রি করে ও অন্যের কাছ থেকে সুদে টাকা এনে কিস্তি পরিশোধ করতে বাধ্য হয়েছেন বলে ঋণ গ্রহিতা নুরজাহান বেগম, রাজমিন আক্তার, মনি বেগম, মনোয়ারা বেগম, লিলি বেগম, আলিমা বেগম, জাহানারা বেগম, হাসনা বেগম, জোসনা বেগম, জেসমিন বেগম, নুরেছা বেগম সহ অন্যান্য নারীরা সরাসরি মাঠকর্মীর সামনেই অভিযোগ করেন। যদিও মাঠকর্মী ক্ষুব্ধ নারীদের কোন প্রশ্নের জবাব না দিয়ে এড়িয়ে গেছেন।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে এনজিও সংস্থা আশা’র মাঠকর্মী গিয়াস উদ্দিন বলেন, আমাদের কর্তৃপক্ষের নির্দেশে কিস্তির টাকা নিচ্ছি। এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, সরকারি নির্দেশনার বিষয়টি জানা নেই। তবে এ ব্যাপারে জগন্নাথপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার দায়িত্বে থাকা উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) ইয়াসির আরাফাত বলেন, দুর্যোগপূর্ণ অবস্থায় কোন এনজিও সংস্থা কিস্তি তুলতে পারবে না। এটি সরকারি নির্দেশনা। তা অমান্য করে কেউ কিস্তি উঠালে ব্যবস্থা নেয়া হবে। তবে দুর্যোগ কেটে গেলে তারা কিস্তি তুলতে পারবেন।

এখানে ক্লিক করে শেয়ার করুণ